চৌগাছায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় দম্পত্তি আটক

চৌগাছা (যশোর) প্রতিনিধি :: যশোরের চৌগাছায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে করা মামলায় আক্তারুজ্জামান আক্তার (৩৯) এবং তার স্ত্রী রিফাত মনির লিজাকে (৩০) আটক করেছে থানা পুলিশ। মঙ্গলবার সকালে উপজেলার বর্ণি গ্রামের নিজ বাড়ি থেকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় নেয়া হয়। পরবর্তীতে উপজেলা আওয়ামীলীগ নেত্রীর দায়ের করা ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় তাদেরকে আটক দেখানো হয় বলে থানা সূত্র নিশ্চিত করেছেন।
আক্তারুজ্জামান চৌগাছার সুখপুকুরিয়া ইউনিয়নের বর্ণি গ্রামের আব্দুল বারিক মন্ডলের ছেলে। আটক দম্পত্বি দুই ছেলে মেয়ের জনক জননী। আক্তার দীর্ঘদিন সিঙ্গাপুরে ছিলেন, করোনায় চাকরি হারিয়ে বর্তমানে নিজ বাড়িতেই ছিলেন।
জানাগেছে, সম্প্রতি চৌগাছা উপজেলা আওয়ামীলীগ নেত্রী চাঁদনী আক্তারকে জড়িয়ে স্যোসাল মিডিয়া ফেইসবুকে একটি অশ্লীল ভিডিও ভাইরাল হয়। এ ঘটনায় ভুক্তভোগী বাদী হয়ে আক্তারুজ্জামান আক্তার ও তার স্ত্রী লিজাকে দায়ি করে থানায় একটি অভিযোগ করেন।
অভিযোগে আওয়ামীলীগ নেত্রী বলেন, ওই দম্পত্তি ইলেকট্রোনিক ডিভাইসের মাধ্যমে তার অশ্লীল ভিডিও ধারণ করে স্যোসাল মিডিয়াতে ভাইরাল করেছে। এতে তার ব্যক্তি ও রাজনৈতিক ভাবমূর্তি চরমভাবে ক্ষুন্ন হয়েছে। এ ধরনের অভিযোগের ভিত্তিতে মঙ্গলবার তাদেরকে প্রথমে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় নেয়া হয়। পরে আটক দেখানো হয় বলে নিশ্চিত করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা পরিদর্শক (ওসি তদন্ত) গোলাম কিবরিয়া।
থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সাইফুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, এ ঘটনায় মামলা হয়েছে, মামলা নং ২৭। দম্পত্তিকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। #